‘বাজার স্থিতিশীল, চালের দাম কমেছে’: বাণিজ্যমন্ত্রী

387

ঢাকা, আগস্ট ০২: বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, ‘আসন্ন কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে নিত্য প্রায়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়বে না। বাজার স্থিতিশীল রয়েছে। চালের দাম কমে এসেছে।’

বুধবার সকালে সচিবালয়ে ঢাকায় নিযুক্ত জাপানের নতুন রাষ্ট্রদূত মাসাতো ওয়াতানাবের সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, ‘সরকার নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য সাধারণ মানুষের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যে রাখতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। কোরবানির ঈদে যাতে কোনোভাবে পণ্যের দাম না বাড়ে সেজন্য আমারা সচেষ্ট আছি। বরং পণ্যের দাম যাতে আরো কমানো যায় তার জন্য নানামুখি পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। এ কারণে চালের দাম কমে এসেছে।’

হঠাৎ পেঁয়াজের দাম বাড়ার কারণ জানতে চাইলে তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘এটা সাময়িক। দ্রুত পেঁয়াজের দাম কমে যাবে।’

এ সময় বাণিজ্যসচিব সুভাশিষ বোস সাংবাদিকদের বলেন, ‘বাজারে চালের দাম কমেছে চার টাকা। তবে খুচরা বাজারে একেক ধরনের পণ্যের দাম একেক ধরনের। তাই সব মনিটরিং করা কষ্টসাধ্য। তারপরও বাজার স্থিতিশীল রাখতে আমাদের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।’

এর আগে ঢাকায় নিযুক্ত  জাপানের নতুন রাষ্ট্রদূত মাসাতো ওয়াতানাবে বাণিজ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন।

বৈঠক প্রসঙ্গে তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘জাপানের রাষ্ট্রদুত নতুন এসেছেন। কাজ শুরু করেছেন। এটা ছিল আমার সঙ্গে তার প্রথম সৌজন্য সাক্ষাৎ। জাপান আমাদের পুরাতন ঘনিষ্ট বন্ধু। তারা চাইলে সে দেশের ব্যবসায়ীদের জন্য একটি স্পেশাল ইকোনোমিক জোন দেওয়া হবে। সরকার বিদেশিদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের জন্য সব ধরনের সুবিধা নিশ্চিত করেছে। জাপানকে সেই সিুবিধা গ্রহণের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।’

মন্ত্রী বলেন, ‘জাপান চাইলে স্পেশাল ইকোনোমিক জোনে পোশাক খাতে বিনিয়োগ করতে পারবে।’